আখাউড়ায় কাষ্টমসের এর মালামাল ধংস


স্টাফ রিপোর্টার,ব্রাহ্মণবাড়িয়া
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় ভারত থেকে চোরাই পথে বাংলাদেশে প্রবেশের সময় বিভিন্ন সময়ে বিজিবি সদস্য ও কাস্টম্স কর্তৃপক্ষের হাতে আটক হওয়া বিভিন্ন ধরনের মালামাল ধংস করা হয়েছে।
আদালতের নির্দেশক্রমে আজ দুপুর ১২টায় কাস্টমস কম্পাউন্ডের ভেতরে এসব মালামাল ধ্বংস করা হয়। ধংসকৃত মালামালের মধ্যে রয়েছে বিড়ি, সিগারেট, বাজি, কসমেটিকস্ সামগ্রী, কয়েল, কারেন্ট জাল, তামাকের গুড়া, বিস্কুট, প্লাস্টিক সামগ্রী, কার্পেট, শাড়িসহ প্রায় ৯শ প্রকারের বিভিন্ন পণ্য।

এসব মালামাল গত প্রায় ২০ বছর ধরে কাস্টম্স এর গুদামে রক্ষিত ছিল। ভারত থেকে চোরাই পথে বাংলাদেশে প্রবেশের সময় বিভিন্ন সময়ে বিজিবি সদস্য ও কাস্টমস কর্তৃপক্ষ এসব মালামাল আটক করে। পরবর্তীতে আদালতে মামলা দায়ের হলে জব্ধকৃত মালামাল আলামত হিসেবে কাস্টম্স এর গুদামে রাখা হয়। দীর্ঘদিন ধরে এসব মালামাল গুদামে থাকায় নস্ট হয়ে যাওয়া এবং গুদামের স্থান সংকুলান না হওয়ায় গুদামের পরিচ্ছন্নতার জন্য এগুলো ধংস করা হয়েছে।

মালামাল ধংস করার সময় উপস্থিত ছিলেন কাস্টমস ভ্যাট ও কমিশনারেট কুমিল্লার অতিরিক্ত কমিশনার মোঃ আব্দুল হাকিম, সহকারী কমিশনার মোঃ ছালাউদ্দিন রিপন, আখাউড়া উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোঃ সাইফুল ইসলাম, সহকারী পুলিশ সুপার (কসবা সার্কেল) নাহিদ হাসান, কাস্টমস এক্সাইজ ও ভ্যাট, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার উপ-কমিশনার মোঃ ফখরুল আমিন চৌধুরী, আখাউড়া স্থলবন্দরের সহকারী পরিচালক (ট্রাফিক) মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান প্রমুখ।

এ ব্যাপারে কাস্টমস এক্সাইজ ও ভ্যাট, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার উপ-কমিশনার মোঃ ফখরুল আমিন চৌধুরী বলেন, ভারত থেকে চোরাই পথে বাংলাদেশে প্রবেশের সময় বিজিবি ও কাস্টমস কর্তৃপক্ষ এসব পণ্যসামগ্রী আটক করে। আদালতের আলামত হিসেবে পণ্যগুলো কাস্টম্স এর গুদামে রাখা হয়। সম্প্রতি আদালতের আদেশক্রমে গুদাম পরিস্কার করার জন্য এগুলো ধ্বংস করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরো খবর

ফেসবুকে আমরা..